Cancer Awareness



৮ অক্টোবর ২০১৮ কল্যাণপুর পোড়া বস্তিবাসীদের ব্রেস্ট ক্যান্সার সচেতনতার উদ্দেশ্যে একটি হেলথ ক্যাম্পেইন এর আয়োজন করে ক্যান্সার এওয়ারনেস ফাউন্ডেশন অফ বাংলাদেশ এবং হিউম্যান এইড বাংলাদেশ। এই হেলথ ক্যাম্পেইন প্রধান ও মূল উদ্দেশ্যই ছিলো বস্তিতে বসবাসরত অসচেতন মানুষ গুলোকে সচেতন করা।



Cancer
Cancer
Cancer


ক্যাম্পেইনের প্রথম অংশটি সম্পন্ন হয় কল্যাণপুর নতুনবাজার পোড়া বস্তিস্থ ক্রিডেন্স মেডিকেল সেন্টার ও রিসার্চ ইন্সটিটিউট এ। এই সময় যারা মেডিকেল সেন্টারে এসেছিলেন তাদের সেবা প্রদান করা হয় এবং পরবর্তীতে সরাসরি বস্তিতে ঘরে ঘরে গিয়েই সেবা এবং কাউন্সিলিং প্রদান করা হয় । যেখানে দিন আনতে পান্তা ফুরায় সেখানে ব্রেস্ট ক্যান্সারের সমস্যা গুলো চিহ্নিত করার ব্যাপার নিয়ে চিন্তা করাটা আসলেই বিলাসিতা। তবে খুব অবাক করা ব্যাপার হিসেবে দেখা গেলো বস্তির অনেকেই ব্রেস্ট ক্যান্সারের মতো ভয়াবহ সমস্যায় ভুগেছেন বা ভুগছেন এবং এই মানুষ গুলোকে সচেতন করার কেউ ছিলো না বিধায় তারা জানেন ও না যে কিছু ছোট্ট পরীক্ষার মাধ্যমে হয়তো ঘরে বসে ব্রেস্ট ক্যান্সার এর লক্ষণ গুলো শনাক্ত করা সম্ভব।



Cancer
Cancer
Cancer


আজ ক্যান্সার এওয়ারনেস ফাউন্ডেশন অফ বাংলাদেশ এর ভলান্টিয়ার কর্মীরা সেই মানুষ গুলোকে চেষ্টা করেছে সচেতনতার বার্তা গুলো পৌছে দিতে। ২জন ডাক্তার ৪ জন মেডিকেল স্টুডেন্ট এবং দুই জন পুষ্টিবিদের ভলান্টিয়ার গ্রুপটি বস্তি বাসীদের কাছে পৌঁছে দিতে চেয়েছে খুব সাধারণ কিছু তথ্য যা দিয়ে হয়তো বেচে যেতে পারে আগামী তে আরো অনেক গুলো জীবন। আমাদের দেশে দিনকে দিন ব্রেস্ট ক্যান্সার বা স্তন ক্যান্সারের হার বেড়েই চলেছে। সচেতনতার অভাব আর লজ্জার দোহাই দিয়ে এই রোগের বিস্তার বেড়েছে আরো বহু গুনে। সেই ব্যাপারগুলো নিয়েই ক্যান্সার এওয়ারনেস ফাউন্ডেশন অফ বাংলাদেশ টিম আলোচনা করেছে বস্তিবাসী মহিলাগুলোর সাথে। প্রায় বস্তির ৭০ শতাংশ মহিলাকে কাউন্সিলিং করা হয়েছে। ভলান্টিয়ার কর্মীরা প্রতিটি ঘরের দরজায় গিয়ে গিয়ে মহিলাদের সাথে কথা বলছে, বুঝিয়েছে রোগের জটিলতা, রোগের লক্ষণ এবং তারই সাথে রোগ হয়ে গেলে তার প্রতিকারের উপায়। দিনশেষে যারা কিছুটা হলেও বুঝেছেন ব্রেস্ট ক্যান্সারের জটিলতা তারাই এই ক্যাম্পেইন এর সফলতা।